• দেশব্যাপী ২৬ আগস্ট ২০২০, বুধবার রক্তে লেখা ‘ফুলবাড়ী দিবস’ পালন করুন

    তেল-গ্যাস খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির আহ্বায়ক প্রকৌশলী শেখ মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ এবং সদস্য সচিব অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ আগামী ২৬ আগস্ট ২০২০, বুধবার দেশব্যাপী ফুলবাড়ী দিবস পালন করবার আহবান জানিয়ে এক যুক্ত বিবৃতিতে

  • জমি, বসতভিটা, মানুষ, পানিসহ দেশরক্ষা এবং প্রাকৃতিক সম্পদের ওপর সর্বজনের মালিকানা ও কর্তৃত্ব প্রতিষ্ঠার লড়াই ও সংগ্রামের চৌদ্দ বছর (২০০৬-২০২০)

    উন্নয়নের নামে প্রাণ-প্রকৃতি-সম্পদ, জনস্বাস্থ্য-জনজীবন ও জীবিকার বিপরীতে মুনাফা-অন্ধ তৎপরতায় বিশ্বের বাস্তুসংস্থান, নদী-সমুদ্র-জলবায়ু আক্রান্ত। তথাকথিত উন্নয়নের এই প্রাণবিনাশী মুনাফালোভী চরিত্রের কারণে বিশ্ব আজ কোভিড ১৯ এর মতো মহামারির শিকার। বাংলাদেশেও করোনা বিপর্যয়ে কয়েক কোটি

  • রামপাল রূপপুরসহ প্রাণ বিনাশী প্রকল্প বাতিল করে সার্বজনীন স্বাস্থ্যসেবা, খাদ্য নিরাপত্তা ও পরিবেশবান্ধব জ্বালানি ও বিদ্যুৎ ব্যবস্থা বিকশিত করতে হবে

    বিশ্বজুড়ে করোনা বিপর্যয় এবং বাংলাদেশে উন্নয়ন ধরন ও জনবিপদের মুখে জাতীয় কমিটির ৬ দফা দাবির প্রতি সংহতি জানিয়ে ৪ জুলাই এক বৈশ্বিক অনলাইন সংহতি সভা অনুষ্ঠিত হয়। তেল গ্যাস খনিজসম্পদ ও বিদ্যুৎ বন্দর রক্ষা

Notice Board


জাতীয় কমিটির কর্মসূচী:
সারাদেশে ২৬ আগস্ট ২০২০ বুধবার ফুলবাড়ী দিবস পালন
কেন্দ্রীয় কর্মসূচি
২৬ আগস্ট সকাল ১০টা : শ্রদ্ধা নিবেদন, ফুলবাড়ী শহীদ স্মৃতিস্তম্ভ
২৬ আগস্ট সকাল ১১টা: প্রতিবাদ সভা, নিমতলা মোড়, ফুলবাড়ী, দিনাজপুর।
ঢাকাসহ সারাদেশে শহীদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলি ও সমাবেশ।
লন্ডনসহ বিশ্বের বিভিন্ন শহরে সভা-সমাবেশ। দেশে বিদেশে অনলাইনে আলোচনা সভা।

Tuesday, April 21st, 2009

বিদ্যুৎ সংকট, জ্বালানী মন্ত্রণালয়ের দুষ্টগ্রহ এবং বহুজাতিক কোম্পানির আগ্রাসন

১৯৯৪ সালে Broken Hill Properties বা BHP নামে একটি অস্ট্রেলিয়ান কোম্পানিকে কয়লা অনুসন্ধানের কাজে নিয়োগ করা হয়। কয়লা খনি করতে গেলে কী বিরাট পরিমাণ পানি পাম্প করতে হয় তা একটি ভারতীয় উপদেষ্টা ফার্ম এর নিকট জানার পর তাঁরা সিদ্ধান্ত নেন যে, ১৫০ মিটারের বেশী গভীরতায় উন্মুক্ত খনন পদ্ধতি অত্যন্ত Read More…

Saturday, March 21st, 2009

মন্ত্রণালয়ের অপতৎপরতা: প্রেক্ষিত বিদ্যুৎ ও জ্বালানী সংকট

বড়পুকুরিয়াতে উত্তোলিত কয়লা দিয়ে ২৫০ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন হয়। গত বছর সেখানে ৩ লাখ টন কয়লা উদ্বৃত্ত ছিল। এই কয়লা রপ্তানির জন্য বড়পুকুরিয়া কর্তৃপক্ষ সরকারের কাছে অনুমতি চেয়েছেন। সরকার অনুমতি দেয়নি। অর্থাৎ বড়পুকুরিয়ার কয়লা কাজে লাগানোর মতো চাহিদাও আমাদের নেই। সেখানে ১২৫ মেগাওয়াটের আরো একটি প্ল্যান্ট বসানোর কথা। সেটি Read More…

Saturday, February 14th, 2009

বড়পুকুরিয়া ঘোষণা

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি
১৯৮৫ সালের এপ্রিল মাসে বাংলাদেশ জিওলজিক্যাল সার্ভে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি আবিষ্কার করে। ১৯৮৬-৮৭ সাল জুড়ে এই সংস্থা অঞ্চলে আরও কারিগরি অনুসন্ধান সফলভাবে সম্পন্ন করে। ৬.৬৮ বর্গ কিলোমিটার জুড়ে, ১১৮ থেকে ৫০৯ মিটার গভীরে, অতিউন্নত মানের ৩৯ কোটি টন কয়লা এবং অন্যান্য খনিজসম্পদের মজুত নিশ্চিত করা হয়। পরে Read More…

Friday, February 13th, 2009

বহুজাতিক কোম্পানির স্বার্থে সাগরের গ্যাসব্লক ইজারা দানের চলতি চক্রান্ত, ফুলবাড়ী উন্মুক্ত কয়লাখনির পুরাতন চক্রান্ত রুখে দাঁড়ান, বাংলাদেশের সম্পদ দেশের কাজেই লাগাতে হবে

দুই বছরের অনির্বাচিত সরকারের পর বিপুল ভোটে বর্তমান সরকার নির্বাচিত হয়েছে। জাতীয় সম্পদের উপর জনগণের কর্তৃত্ব প্রতিষ্ঠা, সম্পদের সর্বোত্তম ব্যবহার, জ্বালানী নিরাপত্তা নিশ্চিত করবার জন্য বর্তমান নির্বাচিত সরকার গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবেন এটাই জনগণের প্রত্যাশা। কিন্তু অতীতে দেশের সম্পদ লুণ্ঠন-পাচার ও অন্যান্য অনুরূপ তৎপরতার দরুণ অভিযুক্ত সাবেক জ্বালানী সচিব ড. Read More…

Wednesday, November 12th, 2008

Phulbari Coal: A Parlous Project

A critique of the GCM Resources PLC Environment and Social Impact Assessment (ESIA) and Summary Environmental Impact Assessment (SEIA) for the Phulbari Coal Mine Project in Bangladesh prepared by Roger Moody of Nostromo Research, UK. Please read the full report here:

Phulbari Coal: A Read More…

Wednesday, August 20th, 2008

জাতীয় ও রাষ্ট্রীয়ভাবে “ফুলবাড়ী দিবস” পালন করুন: ফুলবাড়ী দিবসের দ্বিতীয় বর্ষপূর্তির প্রাক্কালে সাংবাদিক সম্মেলনে আহবান

[তেল-গ্যাস, খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটির উদ্যোগে ২০ আগস্ট ২০০৮ একটি সাংবাদিক সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন কমিটির আহ্বায়ক প্রকৌশলী শেখ মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ। তিনি সূচনা পত্র উপস্থাপন এবং পাঠ করেন। মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন কমিটির সদস্য সচিব আনু মুহাম্মদ। উক্ত সম্মেলনে দেশের প্রগতিশীল রাজনৈতিক দলের Read More…

Monday, August 11th, 2008

বাংলাদেশের গ্যাস ও জ্বালানী নীতি এবং ধাতব খনিজ বালি সম্পদ : বর্তমান প্রেক্ষাপট- ভূতত্ত্ব বিভাগ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থীবৃন্দ

বিশ্বজুড়ে যুদ্ধ চলছে। কোথাও সশস্ত্র যুদ্ধ, কোথাও বা কূটনৈতিক আবার কোথাও অবরোধের। বিশ্বজুড়ে চলা এসব যুদ্ধের প্রধান কারণ হচ্ছে জ্বালানী তেল এবং খনিজ সম্পদ। কোথাও কোথাও এ যুদ্ধের থাবা এতটাই নগ্ন যে জনপদের পর জনপদ মানুষ মেরে সম্পদ লুণ্ঠন করা হচ্ছে। এরই বড় নিদর্শন ইরাক ও আফগানিস্তান।

আবার কিছু দেশ Read More…

bool(true)

Pin It on Pinterest